বজ্রযোগিনী প্রবাসী কল্যান ফোরামের খাদ্য সামগ্রী বিতরন

বজ্রযোগিনী প্রবাসী কল্যান ফোরামের খাদ্য সামগ্রী বিতরন

10

বজ্রযোগিনী প্রবাসী কল্যান ফোরামের খাদ্য সামগ্রী বিতরন

কাজী বিপ্লব হাসান: মুন্সীগঞ্জের বজ্রযোগিনী ইউনিয়নে প্রবাসী কল্যান ফোরামের আয়োজনে গরীব ও দুস্থ মানুষের মধ্যে খাদ্য সামগ্রী বিতরন করা হয়। আজ ১৮ জুলাই সকাল ১১ টায় বজ্রযোগিনী জি. কে উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠে এই খাদ্য সামগ্রী বিতরন করা হয়।

এসময় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুুলিশ সুপার জনাব সুমন দেব। বজ্রযোগিনী ইউপি চেয়ারম্যান জনাব তোতা মিয়া মুন্সীর সভাপতিত্বে এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন মুন্সিগঞ্জ জেলার ডি. বি আফিসার আবুল কালাম আজাদ, বজ্রযোগিনী ইউপি এর মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের সহ-সভাপতি হযরত আলি শেখ। সার্বিক তত্ত¦াবধানে ছিলেন বজ্রযোগিনী মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের সদস্য সহিদুল্লা শেখ, মুক্তিযোদ্ধা ইয়াদ আলি দেওয়ান প্রমুখ প্রধান অতিথি বক্তব্যে বলেন প্রবাসী ফোরাম বজ্রযোগিনী গরিবদের মাঝে যেভাবে এগিয়ে এসছে সমস্ত বাংলাদেশের প্রতিটি এলাকায় প্রবাসে লোক রয়েছে। তারা যদি সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিত তাহলে মানুষের কিছুটা হলেও সার্বিক সহযোগিতা হতো। আমরা চাই এইখান থেকে শিক্ষা নিয়ে প্রতিটি এলাকায় মানুষের মাঝে তারা জেনো কার্যক্রম চালু করতে পারে। এখানে যারা সাংবাদিক গণ রয়েছেন তারা বাংলাদেশের প্রতিটি এলাকায় এ খবর টুকু পৌঁছে দেওয়ার জন্য অনুরোধ করা হলো। প্রায় ৬০০ গরিব ও দুস্থদের মধ্যে এ খাদ্য সামগ্রী বিতরন করা হয়। খাদ্য সামগ্রীর মাঝে ছিল ৫ কেজি চাল, ১ কেজি পোলাওর চাল, ১ কেজি তেল, ১ কেজি পেয়াজ, ১ কেজি চিনি, আধা কেজি সেমাই ও ১ কেজি লবন। প্রবাসি ফোরামের সভাপতি মোঃ আলি রুবেল (আরব আমিরাত), সহ-সভাপতি মোঃ সবুজ বেপারী (জাপান), সাধারন সম্পাদক মোঃ আনোয়ার শেখ (সৌদিয়ারব), যুগ্ম সাধারন সম্পাদক আবুল কালাম শেখ, অর্থ সম্পাদক সাগর হোসেন (দুবাই), সাংগঠনিক সম্পাদক মাহমুদুল হোসেন তাইজুল (জাপান), সহ- সাংগঠনিক সম্পাদক জামাল শেখ (ফ্রান্স), দপ্তর সম্পাদক তানবির সোহেল (পর্তুগাল), প্রচার সম্পাদক রবিন মৃধা (দুবাই), সহ-প্রচার সম্পাদক জসিম শেখ (সৌদিআরব), ত্রাণ দূর্যোগ সম্পাদক রাজন বেপারী (ফ্রান্স), আন্তরজাতিক বিষয়ক সম্পাদক মোস্তফা হালদার (সিংগাপুর) উপদেষ্টা মন্ডলির সদস্যবৃন্ধ যারা রয়েছেন সামসুউদ্দিন তালুকদার (সুইজারলেন্ড), মোঃ সাঈদ দেওয়ান (দুবাই), মোঃ জামাল হোসেন (দুবাই), মোঃ কামাল হোসেন (ইতালী)

Comments are closed.

%d bloggers like this: