মুন্সীগঞ্জে ১০ বছরের স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের শিকার ধর্ষক আটক

 

মুন্সিগঞ্জ ভয়েজ: গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬ টায় সদর থানার পঞ্চসার ইউনিয়নের মালিরপাথর গ্রামের হযরত আলীর মেয়ে ও বিনোদপুর হাই স্কুলের ৬ষ্ঠ শ্রেণীতে পড়–য়া ছাত্রী (ছদ্ম নাম) নিরালা আক্তার (১০)  কে নিজবাড়ীর ভাড়াটিয়া উজ্জল (২৬) এর দ্বারা ধর্ষণ করার খবর পাওযা গেছে।
ঘটনার বিবরণে জানাযায়, ভাড়াটিয়া উজ্জল নিরালা আক্তার টয়লেট থেকে আসার পথে তাকে ঘরে ডেকে নিয়ে গিয়ে মুখ ও হাত পা বেঁধে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে ফলে নিরজনা অজ্ঞান হয়ে যায়। নিরালাকে তার মা টয়লেট থেকে আসতে দেরী দেখে মেয়েকে খুঁজতে বের হয়। কোথাও না পেয়ে ভাড়াটিয়া উজ্জলের ঘরের দিকে তাকিয়ে দেখে দরজা বন্ধ। তখন তাকে অনেকক্ষন ডাকাডাকির পর দরজা খুলে এবং ঘরের ভিতর প্রবেশ করে দেখে নিরজনা অজ্ঞান হয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় বিছানায় পড়ে আছে। নিরালা মায়ের চিৎকারে আশে পাশের লোকজন এসে দর্ষক উজ্জলকে আটক করে থানায় খবর দেয়। সাথে সাথে সদর থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ধর্ষক উজ্জলকে আটক করে এবং পুলিশ হেফাজতে থানায় নিয়ে যায়।

ধর্ষিতাকে মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে অবস্থা আশংকাজনক দেখে কর্তব্যরত চিকিৎসক প্রনয় কুমার তাকে ঢাকায় প্রেরণ করেন।
এব্যপারে মুন্সীগঞ্জ সদর থানার অফিসার্স ইনচার্জ মোঃ আলমগীর হোসাইন জানান ,আমরা ধর্ষনের ঘটনার খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়ে ধর্ষককে আটক করে পুলিশ হেফাজতে থানায় নিয়ে আসি। আর ধর্ষিতাকে চিকিৎসার জন্য সদর  হাসপাতালে পাঠানো হয়। কিন্তু তার অবস্থা আশংকাজনক দেখে ডাক্তার তাকে উন্নত চিাকৎসার জন্য ঢাকাতে প্রেরন করেন। ধর্ষক এর বিরুদ্ধে নারী শিশু আইনে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

 

Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published.