মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে করোনা চিকিৎসায় যোগ হলো ২টি ভেন্টিলেটর

মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে করোনা চিকিৎসায় যোগ হলো ২টি ভেন্টিলেটর

6
তুষার আহাম্মেদ- মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে করোনায় গুরুতর অসুস্থ্য রোগীদের জন্য দুইটি পোর্টেবল ভেন্টিলেটর প্রদান করা হয়েছে। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের নিকট ভেন্টিলেটর দুটি হস্তান্তর করেন  বাংলাদেশ মেডিকেল এসোসিয়েশন (বিএমএ)’র সাবেক সভাপতি ও বঙ্গবন্ধু মেডিকেল ইউনিভার্সিটির প্রো ভিসি অধ্যাপক ডা. রশীদ-ই-মাহবুব। জেলা সিভিল সার্জন ও মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের তত্বাবধায়ক ডা. আবুল কালাম আজাদ’র অফিস কক্ষে উক্ত ভেন্টিলেটর হস্তান্তর করা হয়।
জানাগেছে, ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধ চলাকালীন সময়ে সিলেট মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে দায়িত্বরত অবস্থায় পাক হানাদার বাহিনীর গুলিতে ডা. সামসুদ্দিন আহম্মেদ নিহত হন। পরবর্তীতে দেশ স্বাধীন হওয়ার পর তার নামে সিলেট মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আবাসিক হোস্টেলের নামকরণ করা হয় সামসুদ্দিন হোস্টেল। তারই ছেলে ডা. জিয়া উদ্দিন সাদী আমেরিকাতে আছেন। আমেরিকাতে বাংলাদেশের একটি চিকিৎসকের গ্রুপে আছে। তারা বিভিন্ন সময়ে বাংলাদেশের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা সরঞ্জাম দিয়ে সহযোগিতা করেন। তারই ধারাবাহিকতায় ২শ’র মতো ভেন্টিলেটর বিভিন্ন সরকারি হাসপাতালে দেয়া হয়েছে। রাজধানী শাহবাগে অবস্থিত ইব্রাহিম কার্ডিয়াক বা বার্ডেম হাসপাতালের মাধ্যমে ডায়াবেটিক হাসপাতালগুলোতে এগুলো সরবরাহ করা হয়। মুন্সীগঞ্জ জেলার ডায়াবেটিক হাসপাতাল চালু হয়নি। এজন্য ডা.  রশীদ-ই-মাহবুব তার নিজ এলাকার করোনায় আক্রান্ত রোগীদের সেবার জন্য এই ভেন্টিলেটর দুটি মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে প্রদান করেছেন। এসময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, মুন্সীগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার এস এম সাখাওয়াত হোসেন, ডা. প্রনয় মান্না দাস, ডা. তাজুল ইসলাম, ফিজিও থেরাপিস্ট আশরাফুল সাগর, দৈনিক মুন্সীগঞ্জের খবর’র নির্বাহী সম্পাদক ও স্টাফ রিপোর্টার উপস্থিত ছিলেন ।

Comments are closed.

%d bloggers like this: