মুন্সীগঞ্জ সরকারী টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ “বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ কর্নারের শুভ উদ্বোধন ও পুরস্কার বিতরনী অনুষ্ঠান”

46

কাজী বিপ্লব হাসান: মুন্সীগঞ্জ সরকারী টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজে আজ ৭ই মার্চ সকাল ১১ টায় “বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ কর্নার” এর শুভ উদ্বোধন করা হয়। উক্ত কর্নারের শুভ উদ্বোধন করেন কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তরের যুগ্ম-সচিব ও পরিচালক (ভোকেশনাল) জনাব কবির আল আসাদ। বঙ্গবন্ধু এবং মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি বিজড়িত ১০০টি ছবি স্থান পেয়েছে এই “বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ কর্নারে”। উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষে সরকারী টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজের বার্ষিক ক্রীড়া- সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান শুরু হয় স্কুলটির প্রাঙ্গনে। উক্ত পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বঙ্গবন্ধু কর্নারের উদ্বোধক কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তরের যুগ্ম সচিব ও পরিচালক (ভোকেশনাল) জনাব কবির আল আসাদ। মুন্সীগঞ্জ সরকারী টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ ও প্রকৌশলী মো: আব্দুর আউয়াল এর সভাপতিত্বে উক্ত পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মিরকাদিম পলিটেকনিক ইন্সটিটিউটের অধ্যক্ষ প্রকৌশলী মো: মিজানুর রহমান। ঢাকা কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তরের সহকারি পরিচালক মো: সাজ্জাদ মুফতি, বিমল কুমার মিশ্র, জহুরুল ইসলাম, কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তরের সংযুক্ত কর্মকর্তা শিশির কুমার ধর, মুন্সীগঞ্জ সরকারী টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষক উত্তম কুমার রায় ও জাকি উদ্দিন আহমেদ। অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনা করেন সরকারি টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষক রাবেয়া খাতুন ও মো: মোনায়েম। প্রধান অতিথির বক্তব্যে মো: কবির আল আসাদ বলেন, আজ ৭ই মার্চ। এই দিনটি একটি ঐতিহাসিক দিন। ২৬শে মার্চ ¯^াধীনতা দিবস শুরু হলেও ৭ই মার্চ এই ¯^াধীনতার বীজমন্ত্র বুনন করেছিলেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান তাঁর ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের ভাষণ দ্বারা। তাই দিনটি একটি বিশেষ ঐতিহ্য বহন করে। মুন্সীগঞ্জের এই টেকনিক্যাল স্কুল ও কলেজের মতো প্রতিটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে এরূপ বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ কর্ণার প্রতিষ্ঠা করা উচিত। তাতে এই প্রজন্ম বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধকে ভালোভাবে জানতে ও বুঝতে পারবে। অনেক দুষ্প্রাপ্য ছবি আছে যা দেখে নতুন প্রজন্ম বুঝতে পারবে বঙ্গবন্ধু এদেশের ¯^াধীনতার জন্য কতোটা পরিশ্রম করেছে। মুক্তিযুদ্ধ কতোটা কঠিন ছিল। মুক্তিযোদ্ধারা প্রাণবাজি রেখে দেশ ¯^াধীনের জন্য যুদ্ধ করেছে। তিনি আরো বলেন, আজ পুরস্কার বিতরণী সভা। খেলাতে অংশগ্রহণ করাটাই বড় কথা জয়লাভ করা বড় নয়। আজকে জয় লাভ না করতে পারলেও আগামীতে তোমরা জয়ী হবে।

পরিশেষে প্রধান অতিথি বিজয়ী ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে পুরস্কার তুলে দেন।

Comments are closed.

%d bloggers like this: