১ লাখ কোটি টাকা নেশার পেছনে বছরে ব্যয়

0 36

১ লাখ কোটি টাকা নেশার পেছনে বছরে ব্যয়

দেশে বর্তমানে বছরে মাদক সেবনে খরচ হয় প্রায় ১ লাখ কোটি টাকা। সংশ্লিষ্ট একাধিক সংস্থার দেয়া তথ্যে এ কথা জানা গেছে। এসব সংস্থার কর্মকর্তারা বলছেন, তাদের কাছে মাদকাসক্তের সংখ্যা ও মাদকের পেছনে ব্যয় হওয়া অর্থের সঠিক কোনো পরিসংখ্যান নেই। তবে বিভিন্ন মাধ্যমে প্রাপ্ত তথ্যানুযায়ী তাদের ধারণা, বর্তমানে দেশে মাদকসেবীর সংখ্যা প্রায় এক কোটি। এদের নেশার পেছনে বছরে খরচ হয় প্রায় এক লাখ কোটি টাকা।

মাদকদ্রব্য ও নেশা নিরোধ সংস্থা মানসের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও জাতীয় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ বোর্ড এবং জাতীয় তামাক নিয়ন্ত্রণ টাস্কফোর্সের সদস্য অধ্যাপক ড. অরুপ রতন চৌধুরী নয়া দিগন্তকে জানান, একজন মাদকাসক্ত ব্যক্তির মাদক সেবনে বছরে খরচ হয় ৫৬ হাজার ৫৬০ টাকা থেকে ৯০ হাজার ৮০০ টাকা। সে হিসাবে ১ কোটি মাদকসেবীর পেছনে বছরে ব্যয় ৫৬ হাজার ৫৬০ কোটি টাকা থেকে ৯০ হাজার ৮০ কোটি টাকা। এ ছাড়া ইয়াবা আসার পর দেশে মাদকের বিস্তার ভয়াবহ আকারে বেড়ে গেছে জানিয়ে তিনি বলেন, বাংলাদেশে বছরে শুধু ইয়াবা বিক্রি হয় ৪০ কোটির মতো। যার বাজারমূল্য প্রায় ৬ হাজার কোটি টাকা। এই ইয়াবা সেবনকারীর মধ্যে ৪৩ শতাংশ নারী।

অরুপ রতন বলেন, সরকারি হিসাব অনুযায়ী মাদক ব্যবসায় জড়িত আছে ২০০ গডফাদার ও ১ লাখ ৬৫ হাজার বিক্রির নেটওয়ার্ক। এদের মাধ্যমে মাদক খাতে বছরে লেনদেন হয় ৬০ হাজার কোটি টাকা। আর বেশ কিছু সংস্থার তথ্যানুযায়ী অবৈধ মাদক আমদানিতে প্রতি বছর বিদেশে পাচার হচ্ছে ১০ হাজার কোটির টাকার বেশি।

এই চিকিৎসকের মতে, ইয়াবা আসক্তের শতকরা ৯০ ভাগ কিশোর-তরুণ। ৪৫ শতাংশ বেকার। ৬৫ শতাংশ আন্ডার গ্র্যাজুয়েট এবং উচ্চ শিক্ষিতের সংখ্যা ১৫ শতাংশ। এ ছাড়া ১৫ বছরের বেশি বয়সের মাদকসেবী আছে ৬৫.২৫ শতাংশ। অর্থাৎ ৪৮ লাখ ৯৩ হাজার ৭৫০ জন তরুণ যুবকের প্রতি ১৭ জনে একজন মাদকাসক্ত।

বাংলাদেশের মাদক পরিস্থিতি নিয়ে জাতিসঙ্ঘের প্রকাশিত প্রতিবেদনের তথ্য তুলে ধরে তিনি বলেন, বিত্তশালী ব্যক্তি থেকে শুরু করে নারী ও শিশু-কিশোরদের প্রায় সাড়ে তিন লাখ মানুষ নানাভাবে মাদক ব্যবসায় জড়িত। এদের মধ্যে ৮৪ শতাংশ পুরুষ, ১৬ শতাংশ নারী।

Leave A Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: