মানবপাচার, মুদ্রাপাচার, ঘুষ লেনদেন ও অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে হওয়া মামলায় হাইকোর্টে আগাম জামিন চেয়ে আবেদন করেছেন  কুয়েতে গ্রেপ্তার লক্ষ্মীপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য (এমপি) কাজী শহিদ ইসলাম পাপুলের স্ত্রী সংসদ সদস্য সেলিনা ইসলাম, শ্যালিকা জেসমিন প্রধান ও মেয়ে ওয়াফা ইসলাম।

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) আইনজীবী মো. খুরশীদ আলম খান আজ শনিবার (২৮ নভেম্বর) এ তথ্য জানিয়েছেন।

আইনজীবী খুরশীদ আলম জানান, গতকাল বৃহস্পতিবার (২৬ নভেম্বর) দুটি জামিনের আবেদন পাওয়া গেছে। একটিতে সেলিনা ইসলাম ও তার মেয়ের আবেদন। অপরটিতে সেলিনা ইসলামের বোন জেসমিন প্রধানের আবেদন। 

গত ১১ নভেম্বর পাপুল, তাঁর স্ত্রী সেলিনা, শ্যালিকা জেসমিন প্রধান এবং মেয়ে ওয়াফা ইসলামের বিরুদ্ধে দুদকের  অনুসন্ধান কর্মকর্তা উপপরিচালক সালাহউদ্দিন বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন।

এর আগে গত ৬ জুন রাতে পাপুলকে তাঁর কুয়েতের বাসা থেকে গ্রেপ্তার করে সেদেশের আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। এর পর থেকে তিনি ওই দেশের কারাগারে আছেন। পাপুলের বিরুদ্ধে মানব ও অর্থপাচার, ঘুষ লেনদেন ও শ্রমিক শোষণের অভিযোগ আনা হয়েছে।

পাপুলের সঙ্গে সম্পৃক্ততা ও সহযোগিতার অভিযোগে কুয়েতের দুই পার্লামেন্ট সদস্য সাদাউন হামাদ ও সালাহ খুরশিদ, জ্যেষ্ঠ সেনা কর্মকর্তা মেজর জেনারেল শেখ মাজন আল-জারাহসহ মোট ১৩ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হয়েছিল। পরে চারজনকে অভিযোগ থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে।kalerkantho
Spread the love

Comments are closed.